শিক্ষা পরিস্থিতি

গাজীপুর জেলার শিক্ষার হার এবং গুনগতমান অত্যন্ত ভাল। শিক্ষার হার ৫৬.৪০%। এ জেলায় ৫টি বিশ্ববিদ্যালয়, ২টি সরকারী কলেজসহ ৪৫টি কলেজ, ১৮টি কারিগরী কলেজ, ৫টি সরকারী মাধ্যমিক স্কুল, ২৭৬টি বেসরকারী মাধ্যমিক স্কুল, ১৮১টি মাদ্রাসা এবং ৫৪২টি সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়, ১৪০টি বেসরকারী ও ৫২টি কমিউনিটি প্রাথমিক বিদ্যালয়, পরীক্ষণ বিদ্যালয় সংলঘ্ন একটি বিদ্যালয় ও একটি শিশু কল্যান প্রাথমিক বিদ্যালয় রয়েছে। এছাড়াও উল্লেখযোগ্য সংখ্যক কিন্ডারগার্টেন ও ক্যাডেট স্কুল রয়েছে। জেলায় উল্লেখযোগ্য সংখ্যক শিক্ষা প্রতিষ্ঠান থাকায় এ জেলাকে শিক্ষা নগরীও বলা হয় । গাজীপুর জেলার প্রাথমিক শিক্ষার মান বেশ সন্তোষজনক। চলতি শিক্ষাবর্ষে ভর্তির হার ৯৮%। সরকারের ২০১০ সনের মধ্যে শতভাগ শিশু ভর্তির লক্ষ্যমাত্রা নিয়ে প্রাথমিক শিক্ষা বিভাগের সকল কর্মকর্তা/কর্মচারী ও শিক্ষকগণ নিষ্ঠার সাথে দায়িত্ব পালন করছেন। এ জেলা ২০০৮ সনের প্রাথমিক বৃত্তি পরীক্ষায় ঢাকা বিভাগের মধ্যে দ্বিতীয় স্থান অর্জন করেছে। এ বছর প্রথম সম্পুর্ণ নুতন আঙ্গিকে প্রাথমিক শিক্ষা সমাপনী পরীক্ষাও সফলভাবে অনুষ্ঠিত হয়েছে। আসন্ন প্রাথমিক শিক্ষা সমাপনী পরীক্ষায় ১৭৩০৭ জন বালক ও ১৯৬২৯ জন বালিকা সর্বমোট ৩৬৯৩৬ জন অংশগ্রহণ করছে। জেলার ছাত্র/ছাত্রীরা পরীক্ষায় কাংখিত ফললাভ করবে বলে আশা করা যায় ।

 

শিক্ষাও প্রশিক্ষণপ্রতিষ্ঠানঃ

  ১ প্রাথমিক বিদ্যালয়        ৫২৭টি
মাধ্যমিক বিদ্যালয় ২৫৫টি
মহাবিদ্যালয় ৩০টি
মাদ্রাসা ১৭৯টি
হোমিও মেডিক্যাল কলেজ ১টি
         বেসরকারী মেডিক্যাল কলেজ ২ টি
বিশ্ববিদ্যালয় ৫টি
প্রাইমারী টিচার্স ট্রেনিং কলেজ ১ টি